কক্সবাজারে ‘বন্ধুকযুদ্ধে’ মাদক কারবারি নিহত

image-74980-1563086950.jpg

শাহ্‌ মুহাম্মদ রুবেল। 

কক্সবাজারের টেকনাফ থানা পুলিশের হাতে আটক একাধিক মামলার আসামি মুফিদুল আলম প্রকাশ মংগ্যাইয়া (৪২) বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়েছে। রবিবার (১৪ জুলাই) ভোররাতে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মুফিদুল আলম কক্সবাজারের হোয়াইক্যং নয়াপাড়ার প্রয়াত নজির আহমদের ছেলে।

জানা যায়, রবিবার ভোররাতে মুফিদুলকে সাথে নিয়ে নয়াপাড়া বালিকা মাদ্রাসার পেছনে মাদকের চালান উদ্ধার অভিযানে যায় টেকনাফ থানা পুলিশ। এ সময় আগে থেকে ওঁৎ পেতে থাকা তার সহযোগীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি করে। পুলিশও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি করে। এক পর্যায়ে তার সহযোগীরা পালিয়ে গেলে পরিস্থিতি শান্ত হয়।

পরে ঘটনাস্থল তল্লাশি করে দুইটি অস্ত্র, ১০ রাউন্ড বুলেট ও ছিটিয়ে থাকা প্রায় পাঁচ হাজার পিস ইয়াবাসহ গুলিবিদ্ধ মুফিদুলকে উদ্ধার করে। মুফিদুলকে উন্নত চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

এ সময় পুলিশের তিন সদস্য আহত হয়। আহত পুলিশ সদস্যদের চিকিৎসার জন্য টেকনাফ উপজেলা সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

টেকনাফ মডেল থানার অফিসার্স ইনচার্জ (ওসি) প্রদীপ কুমার দাশ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, নিহত মুফিদুল আলম একাধিক মামলার আসামি। তদন্ত সাপেক্ষে এই ঘটনায় সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে।

আপনার মন্তব্য দিন

Share this post

scroll to top