টেকনাফ শামলাপুরে পুলিশের সাথে বন্দুক নিহত ২

crossfire.png

স্টাফ করেসপনডেন্ট, আলোকিত টেকনাফ : 

টেকনাফে পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে ২ রোহিঙ্গা নিহত হয়েছেন। সোমবার (১৪ মে) রাত ২টার দিকে টেকনাফ শামলাপুর মেরিনড্রাইভে এ ঘটনা ঘটে।পুলিশের দাবি, নিহত দু’জনই চিহ্নিত মানবপাচারকারী ছিল।

নিহতরা হলেন, টেকনাফের শামলাপুর রোহিঙ্গা শিবিরের বাসিন্দা আজিম উল্লাহ (২০) ও উখিয়ার জামতলি রোহিঙ্গা শিবিরের আবদুস সালাম (৫২)। এ ঘটনায় চার পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। তারা হলেন, এএসআই জহিরুল, কনস্টেবল মোবারক হোসেন, মানিক মিয়া, কায়রুল।

টেকনাফ থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) প্রদীপ কুমার দাস জানান, অভিযানের সময় দু’টি দেশীয় অস্ত্র (এলজি), ১০টি গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।

তিনি জানান, গোপন তথ্যের ভিত্তিতে পুলিশ সেখানে অভিযান পরিচালনা করে। এ সময় পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি চালায় তারা।

আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। তখন পালানোর সময় দু’জন গুলিবিদ্ধ হন। পরে তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে আনা হলে, জরুরি বিভাগের চিকিৎসক তাদের প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে তাদের কক্সবাজারে পাঠান।

টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক জাকারিয়া মাহমুদ বলেন, পুলিশ গুলিবদ্ধ দুই রোহিঙ্গাকে হাসপাতালে নিয়ে আসে। দু’জনের শরীরে দু’টি করে গুলির চিহ্ন রয়েছে। আহত পুলিশ সদস্যদের চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

ওসি বলেন, লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে। নিহতরা তালিকাভুক্ত মানবপাচারকারী ছিল।

আপনার মন্তব্য দিন

Share this post

scroll to top