শুক্রবার, ০১ জুলাই ২০২২, ০১:০০ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম
রোহিঙ্গা ক্যাম্পে নারী ও শিশু নির্যাতন রোধে ৮-এপিবিএন এর হটলাইন চমেক শিশু স্বাস্থ্য বিভাগের প্রধান হলেন অধ্যাপক ডা. রেজাউল করিম অবশেষে শুরু হচ্ছে টেকনাফ-কক্সবাজার সড়কের নির্মাণ কাজ উখিয়া ক্যাম্পে ডাকাতি প্রস্তুতিকালে অস্ত্রসহ ছয় রোহিঙ্গা গ্রেফতার বঙ্গোপসাগরে ভাসমান স্বর্ণ: বদলে দিতে পারে দেশের ভাগ্য! টেকনাফে পাহাড় থেকে অস্ত্রসহ ২ রোহিঙ্গা ডাকাত গ্রেফতার অপহৃত মিয়ানমারের দুই শিক্ষক বিজিপির নিকট হস্তান্তর উখিয়া রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীদের গুলিতে তালিকাভূক্ত সন্ত্রাসী নিহত মিয়ানমার থেকে পাচারকালে ১কেজি আইসসহ পাচারকারী গ্রেফতার রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ‍‍‌‌‌‌‌‍’বাড়ি চলো’ ক্যাম্পেইন চলছে

এগিয়ে চলেছে কক্সবাজার রেললাইন প্রকল্পের কাজ

Reporter Name
  • Update Time : মঙ্গলবার, ৭ আগস্ট, ২০১৮
  • ৩৯১ Time View

মাহাবুবুর রহমান :

এগিয়ে চলেছে কক্সবাজার রেল লাইন প্রকল্পের কাজ। ইতি মধ্যে বিভিন্ন স্থানে ষ্টেশন নির্মাণ কাজ, রাস্তা নির্মানের কাজ সহ আরো অনেক গুরুত্বপূর্ন অবকাঠামো নির্মানের কাজ চলছে। একই সাথে প্রকল্পের কাজের আনুষাঙ্গিক অনেক উন্নয়ন মুলক কাজের নকশাগত কাজও শেষ পর্যায়ে। ১৮ হাজার কোটি টাকার এই মহা প্রকল্পের নির্মান কাজ শেষ হলে কক্সবাজারের সাথে যোগাযোগ ব্যবস্থার আমুল পরিবর্তন আসবে। তা পর্যটন সহ অর্থনৈতিক উন্নয়নে কক্সবাজারকে অনেক দূরএগিয়ে নিয়ে যাবে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্ঠরা। এদিকে জমি অধিগ্রহন প্রকৃয়া বিলম্বিত হওয়ায় রেল লাইন প্রকল্পের কাজের ধীরগতি বলে মনে করছেন কর্মকর্তারা।
কক্সবাজার রেল লাইন প্রকেল্পর সহকারী পরিচালক মোঃ হেলাল উদ্দিন জানান,চট্টগ্রামের দোহাজারী থেকে কক্সবাজার রেল লাইন প্রকল্পের কাজ দ্রুত এগিয়ে চলেছে,এখানে দুটি প্রকল্প একটি দোহাজারী থেকে চকরিয়া আর দ্বিতীয় প্রকল্পটি চকরিয়া থেকে কক্সবাজার হয়ে ঘুমঘুম পর্যন্ত। ইতি মধ্যে দুটি প্রকল্পের জন্যই চাইনিজ কোম্পানী সহ সাথে স্থানীয় ঠিকাদারী প্রতিষ্টানের সাথে চুক্তি হয়ে গেছে তারা বিভিন্ন জায়গায় কাজ শুরু করেছে। ইতি মধ্যে কিছু কাজ দৃশ্যমান যেমন,লিংক রোড় এলাকায় বেইসমেন্ট রাস্তার কাজ,ষ্টেশন নির্মান কাজ এছাড়া ঈদগাও সহ অনেক জায়গাতে প্রকল্পের কাজ বিভিন্ন ষ্টেশন বা অবকাঠামোগত উন্নয়নের কাজ চলছে। এছাড়া দোহাজারী থেকে চকরিয়াতেও বেশ উন্নয়ন মুলক কাজ চলছে। এ সব কাজের জন্য ১৮ হাজার কোটি টাকার প্রাক্কলিক ব্যয় ধরা হয়েছে।
এদিকে কক্সবাজার রেল লাইন প্রকল্পের কাজ দৃশ্যমান হওয়াতে সাধারণ মানুষের মাঝে ব্যাপক আশার সঞ্চার হয়েছে, আলাপ কালে কক্সবাজার জেলা পরিষদের সদস্য সোহেল জাহান চৌধুরী বলেন,আওয়ামীলীগ সরকারের আমলেই দেশের সবচেয়ে বেশি উন্নতী হয়েছে। কক্সবাজারের রেললাইন ছিল আমাদের স্বপ্ন অতীতে অনেক সরকারের মন্ত্রীরা আমাদের রেল আসবে বলে স্বপ্ন দেখিয়েছিল কিন্তু তারা রেলের একটি বিটও বসাতে পারেনি। আর বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা না চ্ইাতেই কক্সবাজার বাসীকে উপহার দিয়েছে রেল। বর্তমানে কক্সবাজারে রেললাইন প্রকল্পের কাজ অনেকটা দৃশ্যমান। এখানে অনেক যন্ত্রপাতি ব্যবহার হচ্ছে রাস্তা তৈরি হচ্ছে,ষ্টেশন নির্মান কাজ চলছে। তবে একটি বিষয় এলাকার মানুষ জমি অধিগ্রহন নিয়ে নানান ভাবে ক্ষুদ্ধ এটাকে নিয়ন্ত্রন করতে হবে।
কক্সবাজার ঝিলংজা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান টিপু সোলতান বলেন,আমরা অনেক আগে থেকে শুনে আসছিলাম কক্সবাজারে রেল আসবে কিন্তু সেটি বাস্তবে রুপান্তর করেছেন আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। রেল লাইন প্রকল্প নির্মান কাজ শেষ হলে কক্সবাজারের অর্থনৈতিক প্রবাহ অনেক বেড়ে যাবে মানুষের জীবন মান উন্নত হবে। তাই কক্সবাজারের মানুষকে শেখ হাসিনার প্রতি আস্থা রাখার জন্য আহবান জানান তিনি।
কক্সবাজার সুশাসনের জন্য নাগিরক সুজন সভাপতি প্রফেসর এম এ বারী বলেন,শুধু রেল লাইন নয়,কক্সবাজারে এখন বেশ কয়েকটি মেঘা উন্নয়ন প্রকল্পের কাজ চলছে। যে গুলো কক্সবাজারের মানুষের ভাগ্য নির্ধারনে বড় ভুমিকা পালন করবে। এর মধ্যে রেল লাইন প্রকল্পটি মানুষের মনে বেশি স্থান করে নিয়েছে কারন এটি মানুষের অর্থনৈতিক প্রবাহের সাথে সরাসরি জড়িত। আমি ও দেখছি বিভিন্ন জায়গায় রেল লাইন প্রকল্পের কাজ চলছে,অনেক জায়গায় বেশ কিছু যন্ত্রপাতিও আনা হয়েছে। আমি মনে করি যে কোন এলাকার উন্নয়নের পূর্বশর্ত হচ্ছে ভাল ও উন্নত যোগাযোগ ব্যবস্থা। আর রেল সব চেয়ে নিরাপদ একটি যোগাযোগ মাধ্যম। যদি কক্সবাজারে রেল লাইন চালু হয়ে যায় তাহলে পর্যটন সহ ব্যবসা বানিজ্যের জন্য খুব বড় অবদান রাখবে।
কক্সবাজার চেম্বার অফ কমার্সের সভাপতি আবু মোর্শেদ চৌধুরী বলেন, কক্সবাজারের সন্তান হিসাবে আমি নিজেও খুবই গর্বিত বোধ করছি,আমাদের জেলাতে রেল লাইন সহ আরো বেশ কিছু মেঘা প্রকল্পের কাজ চলছে সে জন্য। তবে প্রায় সময় সাধারণ মানুষের কাছ থেকে জমি অধিগ্রহনের বিষয়ে নানান অনিয়মের কথা শুনতে পাই। আমার মতে সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ডের পাশাপাশি সে সব বিষয়েও নজর দেওয়া দরকার।
আলাপ কালে কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান জানান,কক্সবাজারের মানুষ সত্যি খুবই ভাগ্যবান,কারন বঙ্গবন্ধু কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নিজে কক্সবাজারের উন্নয়নের দায়িত্ব নিয়েছেন। কোন প্রকার দাবী দাওয়া ছাড়াই আমাদের জন্য রেল লাইন চলে আসছে,অথচ অনেক জায়গায় বহুদিন ধরে দাবী করেও রেল লাইন পাচ্ছে না। কক্সবাজারের গুরুত্ব বিবেচনা করে কক্সবাজারের মানুষকে ভালবেসে প্রধানমন্ত্রী নিজে রেল লাইন দেওয়ার ঘোষনা দিয়েছেন এবং সে অনুযায়ী কাজও হচ্ছে। সবাই দেখছে ইতি মধ্যে রেল লাইন স্থাপনের কাজ অনেক জায়গায় শুরু হয়েছে। আশা করি সরকারের নির্দিস্ট মেয়াদে ঠিকই রেল কক্সবাজারে আসবে।
কক্সবাজার সদর আসনের সংসদ সদস্য সাইমুম সরওয়ার কমল এমপি জানান, কক্সবাজারে বর্তমানে প্রায় দুইশত হাজার কোটি টাকার উন্নয়ন কাজ চলছে,এর মধ্যে রেল লাইন অন্যতম। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে এই দেশ স্বাধীন হয়েছে। আর উনার যোগ্য কন্যার নেতৃত্বে দেশ উন্নয়নের মহাসড়কে অবস্থান করছে। তাই জনগনকে সেটা অনুধাবন করে সব সময় শেখ হাসিনার প্রতি আস্থাশীল থাকতে হবে। তাহলেই আমাদের উন্নয়ন হবে।
কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক মোঃ কামাল হোসেন বলেন, রেল লাইন প্রকল্পের কাজ অনেক দ্রুত এগিয়ে চলছে বলতে হবে। আমার দেখা মতে এত দ্রুত কাজ হতে আমি অন্যকোন প্রকল্প দেখিনি। এটা মুলত সরকারের আন্তরিকতার কারনেই সম্ভব হচ্ছে। আর জমি অধিগ্রহনে কিছু জটিলতা এড়িয়ে যত দ্রুত সম্ভব মানুষকে তাদের প্রাপ্য বুঝিয়ে দেওয়া হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

সুত্র : দৈনিক কক্সবাজার

More News Of This Category
© All rights reserved © 2021 Alokito Teknaf
Handicraft By SHAH