কক্সবাজারে শিশু ধর্ষণ মামলার বাদীকে হত্যা

খাঁন মাহমুদ আইউব, বিশেষ প্রতিনিধি।

কক্সবাজারের রামুতে ধর্ষণ মামলার আসামীর ভাইয়ের হামলায় মামলার বাদী (ধর্ষিতার পিতা) মো. ইউনুছ (৩৫) নিহত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। নিহত ব্যক্তি রামু গর্জনীয়া দোছরী ইউনিয়নের গলাছিরা এলাকার মৃত কালাম বকসুর ছেলে।

রামু থানার (ওসি) আজমীর উর জামান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

নিহতের পারিবারিক সূত্র জানায়, বুধবার (১৩ জানুয়ারী) রাত ১০টা নাগাদ শিশু ধর্ষন মামলার আসামী গর্জনীয়া দোছরী একই এলাকার নূরুল ইসলামের ছেলে জয়নাল আবেদীনের বড় ভাই মো. ইলিয়াছ ইউনুছকে ঘর থেকে ডেকে বের করে। ইউনুছ বের হলে কোন কিছু বুঝে উঠার আগেই পেটে লোহার বড় ঢুকিয়ে আহত অবস্থায় ফেলে চলে যায়। ইনুছের চিৎকারে বাড়ির লোকজন এগিয়ে এসে তাকে উদ্ধার করে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করেন। চমেক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বৃহস্পতিবার রাতে তার মৃত্যু হয়।

লাশ পোস্টমর্টেম শেষে স্বজনদের কাছে হস্থান্তর করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পাচলাইশ থানার ওসি আবুল কাসেম।

প্রসঙ্গত, ২০১৮ সালের ১৩ আগষ্ট দুপুরে গর্জনীয় দোছরী এলাকার গলাছিরা কবিরার পাহাড় নামক স্থানে স্কুল ফেরার পথে তৃতীয় শ্রেণীর দুই বান্ধবীকে ফুসলিয়ে একই এলাকার শাহীন ও (কারান্তরিন) জয়নাল জঙ্গলে নিয়ে ধর্ষণ করে। পরে রক্তাক্ত অবস্থায় দুই বান্ধবীকে উদ্ধার করে কক্সবাজার সদর হাসপালে নিয়ে চিকিৎসা করা হয়। পরে ২৬ আগষ্ট ভিকটিমের পিতা ইউনুছ বাদী হয়ে জয়নালকে আসামী করে কক্সবাজার আদালতে একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। উক্ত মামলায় আটক হয়ে জয়নাল বর্তমানে কারাগারে আছেন।

এছাড়াও একই ঘটনায় অপর শিশু মা বুলবুল আকতার বাদী হয়ে শাহীনের বিরুদ্ধে একটি ধর্ষন মামলা দায়ের করেন।