সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৫:৪১ পূর্বাহ্ন

টেকনাফে কাউন্সিলর একরাম নিহতের ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া!

Reporter Name
  • Update Time : রবিবার, ২৭ মে, ২০১৮
  • ৫৪৭ Time View

খাঁন মাহমুদ আইউব(কক্সবাজার)প্রতিনিধি:-

কক্সবাজার টেকনাফে র্যাবের সাথে কথিত বন্ধুক যুদ্ধে পৌর কাউন্সিলর একরাম
নিহতের ঘটনায় টেকনাফে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইস
বুকে নিন্ধা ও সমবেদনার ঝড় বইছে।
রবিবার ২৭ মে দিবাগত রাতে উপজেলার নোয়াখালী পাড়া এলাকায় নিহত একরামের লাশ
উদ্ধার হওয়ার পর থেকে এলাকার জন গন বিভিন্ন প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে
যাচ্ছেন।কেউ বলেছেন,এটা স্বর্যন্ত্রমূলক হত্যাকান্ড।এক জন গনমাধ্যম
কর্মী রহমান মাসুদ তার ফেইস বুক ওয়ালে লিখেছেন, একরামের প্রশ্নবিদ্ধ
ক্রসফায়ার!
একজন গোয়েন্দা কর্মকর্তার সঙ্গে ব্যাক্তিগত শত্রুতার জেরে ২০০৮ এর দিকে
মাদক ব্যবসায়ীদের তালিকায় নাম এসেছিল কমিশনার একরামের। একটি মামলা
হয়েছিলো সে সময়। সেই সূত্রে ২০১০ সালে নাম ওঠে স্বরাষ্ট্রমন্ত্
রণালয়ের প্রথম তালিকাতেও। নাম আসে সে সময়ে গণমাধ্যমে প্রকাশিত/
প্রচারিত কিছু অনুসন্ধানি প্রতিবেদনেও। কিন্তু ওই গোয়েন্দা কর্মকর্তার
বদলির পর সেটা সংশোধন হওয়ায় নিরাপরাধ এ জনপ্রিয় কমিশনারের নাম বাদ পড়ে
হাল নাগাদ সব তালিকা থেকে।
এটা ঠিক, তার পরিবার-স্বজনদের মধ্যে আপন ভাইসহ অনেকেই ইয়াবা ব্যাবসায়
জড়িয়ে পড়েন।আবার গিয়াস উদ্দীন লিখেছেন,এই নির্মম হত্যা মেনে নেয়ার
নয়।এভাবে ফেস বুক জুড়ে যেনো সবার একটিই বাক্য তিনি ইয়াবা ব্যবসার সাথে
জড়িত ছিলেন না।তার পরিবারের ঘনিষ্ট জনদের দাবী তিনি ইয়াবা ব্যবসার সাথে
জড়িত ছিলেন না।খোজ নিয়ে জানা গেছে,ইতিমধ্যে তিনি চরম অর্থ সংকটে
ছিলেন।পয়সার অভাবে বাড়ির কাজ সম্পুর্ণ করতে পারেন নাই।তার পরিবারে নেমে
এসেছে শোকের মাতম।তার ১৪ বছরের কন্যার আহাজারী যেনো বাতাস ভারী হয়ে
উঠেছে।রবিবার রাত ১০ টা বাদে তারাবিহ পৌর ঈদগাহ ময়দানে নামাজে তারাবিহ
শেষে জানাজার নামাজ অনুষ্টিত হবে বলে পারিবারিক সুত্র নিশ্চিত করেছেন।

More News Of This Category
© All rights reserved © 2021 Alokito Teknaf
Handicraft By SHAH