সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৫:২১ পূর্বাহ্ন

শীতের সকালে শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা

Reporter Name
  • Update Time : শনিবার, ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৭
  • ৩০৮ Time View

মহান বিজয়ের ৪৬ তম বর্ষের প্রথম দিন। ভোরে বিভিন্ন শ্রেনী পেশার লোকদের শ্রদ্ধা আর ভালবাসায় সিক্ত হলো কক্সবাজার কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার।
শহীদ বেদিতে প্রথমে শ্রদ্ধা জানায় কক্সবাজার জেলা প্রশাসন। শ্রদ্ধা নিবেদন করে সদর উপজেলা প্রশাসন।

শহীদদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এডঃ সিরাজুল মোস্তফা, সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান চেয়ারম্যানের নেতৃত্বে দলীয় নেতাকর্মীরা।

এরপর বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক, স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন-সংস্থা মহান মুক্তিযোদ্ধে শহীদ বীর বাঙালীদের প্রতি শ্রদ্ধাঞ্জলী নিবেদন করে। একইভাবে প্রতি উপজেলায় শহীদ বেদিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করে বাঙালীরা। কক্সবাজার জেলার পার্শ্ববর্তী নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা প্রশাসন, আওয়ামী লীগ, প্রেস ক্লাবসহ বিভিন্ন সংগঠনও শহীদ বেদিতে শ্রদ্ধার্ঘ্য নিবেদন করে।

জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট শামীম আরা স্বপ্নার নেতৃত্বে শহীদ মিনারে শ্রদ্ধাঞ্জলী।

তবে, এবারে ঘড়ির কাটা দিবাগত রাত ১২ টা পেরিয়ে প্রথম প্রহরে ফুল দিতে নিষেধ ছিল। তাই সকালেই সবাই শহীদ মিনারে যায়।
প্রতি বছরের ন্যায় পুরো শহীদ মিনার এলাকাজুৃড়ে উপচেপড়া ভীড় চোখে পড়েছে। শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা জানায় কক্সবাজার প্রেসক্লাব, কক্সবাজার সাংবাদিক ইউনিয়ন, কক্সবাজার চেম্বার, কক্সবাজার জেলা আইনজীবী সমিতি, জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ, বিএমএ, বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।
বাংলাদেশের বিজয় ছিনিয়ে আনতে যাদের আত্নত্যাগ তাদের শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করতে জড়ো হয় দেশপ্রেমিক জনতা। শীতের কোয়াশা আর ঠান্ডা ভেদ করে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের বিনম্র শ্রদ্ধা জানানো হয়।

কক্সবাজার সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি আবু তাহের চৌধুরীর নেতৃত্বে শহীদ বেদিতে শ্রদ্ধা নিবেদন

বাংলাদেশের সুদীর্ঘ রাজনৈতিক ইতিহাসে শ্রেষ্ঠতম ঘটনা হলো ১৯৭১ সালের মহান মুক্তিযুদ্ধ। সশস্ত্র স্বাধীনতা সংগ্রামের এক ঐতিহাসিক ঘটনার মধ্য দিয়ে বাঙালি জাতির সামাজিক রাজনৈতিক স্বপ্ন সাধ পূরণ হয় এ মাসে।

মহান বিজয়ে নাইক্ষ্যংছড়ি প্রেসক্লাবের শ্রদ্ধা নিবেদন

বাঙালি জাতির সর্বশ্রেষ্ঠ অর্জন মুক্তিযুদ্ধের অবিস্মরণীয় গৌরবদীপ্ত চূড়ান্ত বিজয় এ মাসের ১৬ ডিসেম্বর অর্জিত হয়। স্বাধীন জাতি হিসেবে সমগ্র বিশ্বে আত্মপরিচয় লাভ করে বাঙালিরা। অর্জন করে নিজস্ব ভূখন্ড। আর সবুজের বুকে লাল সূর্য খচিত নিজস্ব জাতীয় পতাকা। ভাষার ভিত্তিতে যে জাতীয়তাবাদ গড়ে উঠেছিল এক রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের মাধ্যমে ঘোষিত স্বাধীনতা পূর্ণতা পায় এ দিনে।

পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রী বীর বাহাদুর এমপির পক্ষে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতাদের শ্রদ্ধাঞ্জলী।

বাঙালির হাজার বছরের স্বপ্নপূরণ হওয়ার পাশাপাশি বহু তরতাজা প্রাণ বিসর্জন আর মা-বোনের সম্ভ্রমের বিনিময়ে এই অর্জন হওয়ায় বেদনাবিধূর শোকগাঁথার মাসও এই ডিসেম্বর। আর কোন বিভেদ নয়, সম্মিলিতভাবে দেশকে এগিয়ে নেয়ার প্রত্যয় সবার।
জাতি এ বছর বিজয়ের ৪৬ তমবার্ষিকী পালন করছে।

More News Of This Category
© All rights reserved © 2021 Alokito Teknaf
Handicraft By SHAH